ঝিনাইদহে চাঞ্চল্যকর আলমসাধু চালক হত্যা মামলায় ৩জনকে যাবজ্জীবন কারাদন্ড

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি-  
ঝিনাইদহ সদর উপজেলার পোড়াহাটি গ্রামে চাঞ্চল্যকর আলমসাধু চালক আজাদ হোসেন হত্যা মামলায় ৩ জনকে যাবজ্জীবন কারাদন্ড দিয়েছে আদালত।বুধবার দুপুরে ঝিনাইদহ দায়রা জজ আদালতের বিচারক মোঃ নাজিমুদ্দৌলা এ দন্ডাদেশ প্রদাণ করেন।

দন্ডিতরা হলো-ঝিনাইদহ সদর উপজেলার মহিষাডাঙ্গা গ্রামের হাজের উদ্দিনের ছেলে টোকন মিয়া, দোগাছী গ্রামের মৃত নান্নু বিশ্বাসের ছেলে তাহিদুর রহমান তাহিদ ও যশোর কোতয়ালী থানার বালিয়াডাঙ্গা গ্রামের মৃত নওশের আলী সরদারের ছেলে শুকুর আলী সরদার।

মামলার রাস্ট্রপক্ষের আইনজীবি ইসমাইল হোসেন বাদশা জানান, ২০১৩ সালের ২৮ জুন রাতে সদর উপজেলার বয়েড়াতলা গ্রামের মকর আলী মন্ডলের ছেলে আজাদ হোসেনের আলমসাধু ভাড়া নিয়ে গলাকেটে ও কুপিয়ে হত্যা করে পোড়াহাটি ১০ নম্বর নামক স্থানে একটি ঝোপের মাঝে ফেলে রেখে আলমসাধু নিয়ে পালিয়ে যায় আসামীরা। ঘটনার ৮ দিন পর ৫ জুলাই তার অর্ধ-গলিত লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

এ ঘটনায় নিহতের পিতা মকর আলী বাদী হয়ে একটি হত্যা মামলা দায়ের করে। তদন্ত শেষে পুলিশ ২০১৪ সালের ১৫ জানুয়ারি আদালতে চার্জসিট  দাখিল করে। দীর্ঘ বিচারিক প্রক্রিয়া শেষে ওই মামলায় টোকন, তাহিদ ও শুকুর আলীকে যাবজ্জীবন কারাদন্ড ও ৫০ হাজার টাকা করে জরিমানা করে আদালত। জরিমানা অনাদায়ে আরও ১ বছরের কারাদন্ডের আদেশ দেওয়া হয়। আসামীদের মধ্যে শুকুর আলী পলাতক রয়েছে।

শেয়ার করতে ক্লিক করুন

YOUR COMMENT